অনলাইনে ইফতারি, সেহরির খাবার ও বাহারি পোশাক

39
অনলাইনে ইফতারি, সেহরির খাবার ও বাহারি পোশাক

রয়েল নিউজঃ

ইফতার, সেহরি আর ঈদের পোশাক অনলাইনে দিচ্ছেন নারী উদ্যোক্তারা। ওমেন অ্যান্ড ই-কর্মাস, ফোরাম উইয়ের তথ্যমতে, তাদের সাড়ে ৩ লাখ সদস্য এই রোজায় বাহারি ইফতার, মজাদার মানসম্পন্ন সেহরি আর আধুনিক পোশাকের পসরা সাজিয়ে বসেছেন অনলাইনে। প্রতিদিন বিক্রি হচ্ছে লাখ টাকার ওপরে। বিজ্ঞজন বলছেন, নারী উদ্যোক্তাদের এই উদ্যোগ প্রশংসনীয় হলেও মান, দাম, পৌঁছে দেওয়া আর গ্রাহকসেবা নিয়ে একটা পেশাদারিত্ব ও প্রাতিষ্ঠানিক জায়গা যেন স্থায়িত্ব এনে দিতে পারে।

রোজা এলেই পরিবারের সবাই মিলে বাহারি খাদ্যসামগ্রী দিয়ে ইফতার এবং ভোররাতে বাইরে গিয়ে সেহরি করায় এখন সমাজের একটি অংশ অভ্যস্ত হয়ে পড়েছে। অনলাইনে ইফতারি ও সেহরির জন্য খাবার কিনছেন অনেকেই।
ফ্যামিলি কিচেন ফুড অ্যান্ড ক্যাটারিং সার্ভিসের শিতুমা জামান বলেন, বসুন্ধরা আবাসিক এলাকা থেকে তিনি বসুন্ধরা, গুলশান ও বনানী এলাকায় ইফতারি ও সেহরির খাবার সরবরাহ করছেন।

গড়ে প্রতিদিন ১৫ থেকে ২০টি পরিবার তার ইফতারি ও সেহরির খাবার কেনে। হোম ডেলিভারির সাদিয়া আলাম জানান, ৭ থেকে ১০টি আইটেমের ইফতারি তার কাছ থেকে কিনলে এক জনের জন্য ২০০ থেকে ৩০০ টাকা খরচ হবে। রঙ বাংলার সিন্ধা দত্ত বলেন, রোজার আগে থেকেই তার ঈদের অর্ডার আসতে শুরু করেছে। গত বছর ঈদেও তার ভালো বিক্রি হয়েছে। তার ক্রেতা মূলত সবাই আত্মীয় আর বন্ধু। বাড়িতে বসে আয় করা যায়, তাই নারীরা বেশি ইকমার্সে এগিয়ে আসছেন বলে মন্তব্য করেন উইয়ের প্রেসিডেন্ট নাসিমা আক্তার নিশা। নিশা বলেন, ‘আমরা নতুন উদ্যোক্তাদের পণ্য যেন ক্রেতা পায়, সে জন্য তাদের প্রথম ১০০ কাস্টমারকে বিনা মূল্যে পণ্য পৌঁছে দেওয়ার ব্যবস্থা রাখি। মান, মূল্য আর গ্রাহকসেবাকে আমরা গুরুত্ব দিয়ে দেখছি। আর এ জন্যই এই সেক্টরে নারী উদ্যোক্তারা এখন বেশি ভালো করেছেন বলে মন্তব্য করেন নিশা। তিনি বলেন, গত বছরের চেয়ে এ বছর আমাদের ইফতার ও সেহরির অর্ডার বেশি। বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের নির্দেশনা অনুসরণ করে আমরা ঢাকার বাইরেও কেনাবেচা করছি।

দেশে বিডি শপ ডট কম, আইটি বাজার ডট কম, মাই শপ বিডি অনলাইন শপিংয়ের মতো অনলাইন বাজারগুলোতেও নারী উদ্যোক্তাদের অংশগ্রহণ বাড়ছে বলে জানান বাংলাদেশ উইমেন্স ইনটেকনোলজির সাধারণ সম্পাদক রেজওয়ানা খান। বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ডেভেলপমেন্ট স্টাডিজের সিনিয়র গবেষক ড. নাজনীন আহমেদ বলেন, বিষয়টিকে প্রাতিষ্ঠানিক রূপ দিতে হবে।

Previous article৩৯ হাজার মার্কিন ডলার ব্যাগটির দাম
Next articleদোকানপাট-শপিংমল খোলা : রাত ৯টা পর্যন্ত